চাঁদপুর, বুধবার ৫ মে ২০২১, ২২ বৈশাখ ১৪২৮, ২২ রমজান ১৪৪২
ফনেটিক ইউনিজয়
সার্চ
¦

ব্রেকিং নিউজ

চাঁদপুরে ঈদের পর শুরু হচ্ছে ক্লেমন টি-২০ ক্রিকেট টুর্নামেন্ট

শাহরিয়া পলাশ ॥

প্রকাশ : ০৫ মে, ২০২১

দেশের সার্বিক করোনা পরিস্থিতি সহ সকল কিছুই স্বাভাবিক থাকলেই ঈদুল ফিতরের পরই শুরু হচ্ছে চাঁদপুর জেলার বিভিন্ন খেলাধুলা। আর এ খেলাধুলার সাথে সাথেই ঈদের পরপরই শুরু হবে ক্লেমন টি-২০ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের খেলাগুলো।
চাঁদপুর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত এ টুর্নামেন্টে অংশ নেয় ৯টি ক্রিকেট দল। অংশনেয়া দলগুলো খেলেন এবং খেলবেন জেলা ও উপজেলার উদীয়মান ক্রিকেটারগণ। চাঁদপুর কোয়াবে’র আয়োজনে এ টুর্নামেন্টটি অনুষ্ঠিত হবে। সাদা বলে রঙ্গিন ড্রেসে খেলোয়াড়রা খেলছেন। টুর্নামেন্ট শুরু হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত অংশ নেয়া দলগুলোর মধ্যে মাত্র ৫টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। বাকি খেলাগুলো ঈদের পর নির্ধারিত তারিখ করে অনুষ্ঠিত হবে বলে আয়োজকদের কাছ থেকে জানা গেছে।
চাঁদপুর স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত টুর্নামেন্টের প্রথম খেলায় অংশ নেয় চাঁদপুর টাইটান্স ও চাঁদপুর শার্ক। টসে জিতে টাইটান্স প্রথমে ব্যাট কওে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৭৬ রান করেন। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে ফজলু ৩৭, হাসান ৩১ ও বাপ্পি ২৬ রান করে। চাঁদপুর শার্ক ১৭৭ রানের জয়ের টার্গেট নিয়ে খেলতে নেমে ২০ ওভাওে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১৬৩ রান করে। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে আলআমিন সব্বোর্চ ৫৬ রান করে। চাঁদপুর টাইটানস ১৩ রানে জয়ী হন ।টুনামেন্টের প্রথম খেলায় ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন মোঃ আজহারুল । সে বল হাতে ৪ ওভাওে ১ মেডেন সহ ২৩ রানের বিনিময়ে ৩টি উইকেট নেন।
টুর্নামেন্টের ২য় দিনে দুটি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম ম্যাচে অংশ নেয় চাঁদপুর ওয়ারিয়রর্স ও চাঁদপুর ঈগলস। টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করার স্বিদান্ত নেয় ওয়ারিয়রর্স। তারা ১৮ ওভার ৪ বলে সবকটি উইকেট হারিয়ে ৮৪ রান করে। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে রাজন ১৭, ইউনুস ১৫ ও ফাহিম ১৪ রান করে। ঈগলসের পক্ষে বল হাতে অমি ৪ ওভারে ২ টি মেডেন সহ ৭ রানের বিনিময়ে ৩টি উইকেট নেন। চাঁদপুর ঈগলস ৮৫ রানের জয়ের টার্গেট নিয়ে খেলতে নেমে ১৫ ওভার ৩ বলে ৭ উইকেট হারিয়ে জয়ের দ্বারপ্রান্তে পৌছে যায়। দলের পক্ষে ব্যাট হতে সিয়াম ৩৮ রান করে। ওয়ারিয়র্সেও পক্ষে বল হাতে ইউনুছ ৩ ওভার ২ বলে ১৪ রানের বিনিময়ে ২টি এবং রাব্বি ৪ওভাওে ১৭ রানের বিনিময়ে ১টি উইকেট লাভ করেন। চাঁদপুর ঈগলস ৩ উইকেটে জয়লাভ করে। ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন সিয়াম।
টুর্নামেন্টের ২য় দিনের দ্বিতীয় খেলায় অংশ নেয় চাঁদপুর চ্যালেঞ্জার্স ও চাঁদপুর লায়ন্স। টসে জয়লাভ কওে প্রথমে ব্যাট করার স্বিদান্ত নেন চাঁদপুর চ্যালেঞ্জার্স। তারা ১৬ ওভার ৪ বলে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১০০ রান করেন। দলের পক্ষে সাকিব ৪৬ রান করেন। চাঁদপুর লায়ন্সের পক্ষে বল হাতে পলাশ কুমার সোম ৪ ওভার ১ বলে ১০ রানে ২টি ও মিঠু ৪ ওভাওে ২৬ রানের বিনিময়ে ৩টি উইকেট নেন। চাঁদপুর লায়ন্স ১০১ রানের জয়ের টার্গেট নিয়ে খেলতে নেমে ১৫ ওভার ৩ বলে বিনা উইকেটে জয়ের দ্বারপ্রান্তে পৌছে যায়। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে আলাউদ্দিন ৬২ ও তোফায়েল ৩৩ রান করেন। চাঁদপুর লায়ন্স ১০ উইকেটে জয়লাভ করে। ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন আলাউদ্দিন। সেরা বোলার নির্বাচিত হন পলাশ কুমার সোম।
টুর্নামেন্টের ৩য় দিনের খেলায় অংশ নেয় প্রথম ম্যাচে চাঁদপুর ব্লুজ ও চাঁদপুর শার্ক। টসে জয়লাভ করে চাঁদপুর ব্লুজ ১৭ ওভার ৪ বলে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১০০ রান করে। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে তরুন ৩৯ ও সায়েম ২৪ রান করেন। শার্কের পক্ষে মোরশেদ ৪ ওভাওে ১০ রানের বিনিময়ে ২ উইকেট নেন। চাঁদপুর শার্কস ১৫ ওভার ৩ বলে ৩ উইকেট হারিয়ে জয়ের দ্বারপ্রাপ্তে পৌছে যায়। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে ইমন ৪৩ রান করেন। চাঁদপুর শার্কস ৭ উইকেটে জয়লাভ করে। ম্যান অব দা ম্যাচ নির্বাচিত হন ইমন, সেরা ব্যাটসম্যান তরুন ও সেরা বোলার মোরশেদ।
একই দিনে বিকেলের খেলায় অংশ নেয় চাঁদপুর টাইর্গাস ও চাঁদপুর ঈগলস। টসে জয়লাভ করে প্রথমে ব্যাট করে ঈগলস। তারা নির্ধারিত ২০ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১৫০ রান করেন। দলের পক্ষে ব্যাট হাতে সিয়াম ৭১, অমি ২৩ রান করেন। ওই ম্যাচে চাঁদপুর টাইর্গাস ১৬ ওভার ৪ বলে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১০৩ রান করেন। চাঁদপুর ঈগলস ৪৭ রানে জয়ী। ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন সিয়াম, সেরা ব্যাটসম্যান অমি ও সেরা বোলার সাকিব।
চাঁদপুর জেলা কোয়াবের সভাপতি ও সাবেক ক্রিকেটার গাজী আলমগীর ও সাধারণ সম্পাদক পলাশ কুমার সোমের সাথে আলাপকালে তারা জানান, জেলার উদীয়মান ক্রিকেটারদের নিয়েই এ আয়োজন। চাঁদপুর স্টেডিয়ামে এ ধরনের টুর্নামেন্ট পরিচালনার মূল উদ্দেশ্যেই হলো ভালো মানের ক্রিকেটার বের করে আনা। যারা জেলা ও উপজেলাতে নিয়মিত ক্রিকেটের সাথে জড়িত তাদেরকে নিয়েই এ টুর্নামেন্টের আয়োজন করা হয়েছে। আশাকরি, টুর্নামেন্টের প্রথম যে ক’টি ম্যাচ হয়েছে পরবর্তীতে অনুষ্ঠিত প্রতিটি খেলা খুব প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক হবে। আরো আশাকরি, সকল কিছু এবং দেশের পরিস্থিতি ভালো থাকলে ঈদের পরই খেলাগুলো শুরু হবে।
টুর্নামেন্টের দলগুলো হচ্ছে : চাঁদপুর হান্টার, চাঁদপুর ব্লুজ, চাঁদপুর র্শাক, চাঁদপুর ওয়ারির্য়স, চাঁদপুর ঈগলস, চাঁদপুর টাইগার্স, চাঁদপুর লায়ন্স, চাঁদপুর হার্ন্টাস ও চাঁদপুর চ্যালেঞ্জার্স। টুর্নামেন্টে অংশ নেয়া ৯টি দলকে ৩টি ভাগে ভাগ করে দেয়া হয়েছে।
টুর্নামেন্টে অংশ নেয়া ৯টি দলের খেলোয়াড়রা হলেন : আলাউদ্দিন, রিফাত, আশিক, সিয়াম, সুমন, সায়েম, আল-আমিন, সবুজ, হৃদয়, ওমর, শিমুল, তোফায়েল মাল, কামরুল, মুকবুল, সিয়াম, তরুণ, মেহেদী, মেহেদী-২, অনুরাগ, সাকিল, আরিফ , রাতুল; ফজলু, বাপ্পি, তামিম, তাসিন, হাসান, আজহারুল, আলী, জিসান, সিয়াব, নাফি , আফিফ,হাবিব, অমি, সিয়াম, নাদিম, অয়ন, সুজন, জিহাদ, সাকিব, নাসির, আল-আমিন , আফ্রিদী,আরিফ, রাকিব, ইমন, দেবু, সিয়াম, কবির, রাহাত, সাইফুদ্দিন, নাজমুল, রবি , ইনজিমান,মিঠু, আবু সাঈদ, মাসুম, জাহিদ, এমটি, শাওন, মাহিদ, নকিব, দীর্ঘ, সিফাত, ইমন, মাসুম, আরিফ, ফাহিম, হাসান, তারেক, সালমান, রবিন, ইউনুস, রাজন, রাব্বি, জহির, শান্ত, সানি, সাকিব, তায়েব, শাখওয়াত, নোমান, রনি, সাব্বির, শাকিল, মারুফ, জুম্মান, আকাশ , আয়মান,সাইফ, মোর্শেদ, ইমন, রকিবুল, রুবেল, পারভেজ, সুবল, মাইনু, মিঠু, মাইনুদ্দিন, সাফা, সোহাগ, হিরা ও আলআমিন।
প্রথম পাতা পাতার আরো খবর

উপদেষ্টা মন্ডলীর সভাপতিঃ ডাঃ জে আর ওয়াদুদ টিপু, প্রতিষ্ঠাতা ও প্রকাশকঃ- মোঃ সেলিম খান, ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকঃ- শহীদ পাটোয়ারী, যুগ্ম সম্পাদকঃ- জাহিদুল ইসলাম রোমান, ব্যবস্থাপনা পরিচালকঃ- কাজী মিজানুর রহমান, ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ- মোহাম্মদ আলী মাঝি কর্তৃক ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়ন, চাঁদপুর থেকে প্রকাশিত এবং সিরাজ অফসেট প্রেস, কলেজ গেইট, চাঁদপুর থেকে মুদ্রিত। কার্যালয়ঃ- খান সুপার মার্কেট (২য় তলা), ঘোষপাড়া ব্রীজের পশ্চিমে, মরহুম আব্দুল করিম পাটোয়ারী সড়ক, চাঁদপুর-৩৬০০। মোবাইল- ০১৭১২-২০৫৭৪৭।